বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ০৬:০০ অপরাহ্ন

স্মৃতিতে শহীদ সামসুদ্দীন বেলাল রহ.

হাফেজ মাওলানা আবুল ফাতাহ| অতিথি লেখক, তাবলীগ নিউজ বিডিডটকম।
চলে গেলেন না ফেরার দেশে, নিজামুদ্দীন অনুসারী ও দাওয়াত ও তাবলীগের অতন্দ্র প্রহরী, আমাদের প্রিয় শহীদ সামছুদ্দীন বেলাল ভাই। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।

হাসপাতালে ভর্তি হওয়া থেকে ইন্তেকাল পর্যন্ত ওনাকে নিকট থেকে দেখার সুযোগ হয়েছে। এ ছাড়াও আমাদের বাড়ী পাশাপাশি এলাকায় এবং একই মারকাযে জুড়ি। উনি এমন এক দ্বীনের খাদেম ছিলেন, যখনই কোন তাকাযা আসতো সাথে সাথে লাব্বাইক বলতেন।

সবাই যখন ঘুমিয়ে পড়তো তখন উনি গভীর রাত পর্যন্ত, কখনো ফাযায়েল আ’মাল কখনো সাদাকাত, কখনো মুন্তখাব হাদীস কখনো বা হয়াতুস সাহাবা পাঠ করতেন। নিজের গুনাহের জন্য রোনাযারী করতেন গভীর রাত পর্যন্ত। নোয়াখালী টাউনে এমন লোক কম আছে যারা ওনাকে চিনে না।

বেলাল ভাই ওনার শারাফাত আর ভদ্রতার জন্য সকলের প্রিয়-পাত্র ছিলেন। এইতো সেদিন নিজামুদ্দিন সফর করে এলেন। এ’লান হলো, টংগি জোড় এবং জোড় থেকে চিল্লায় যেতে হবে। সাথে সাথে লাব্বায়েক। সবার আগে আমাদের প্রিয় বেলাল ভাই।

আল্লাহ্ তা’লার কী শান! টংগির মাঠে আহত হওয়ার পর থেকে একবারের জন্যও জ্ঞান ফেরেনি শুধুমাত্র কালকে ব্যতীত। কিন্তু কালকে মৃত্যুর আগে ৪/৫ মিনিটের জন্য জ্ঞান ফিরেছে। এর মধ্যে ওনার জবানে মৃদুস্বরে উচ্চারিত হচ্ছিলো মহান রাব্বুল আ’লামীনের নাম আল্লাহ্, আল্লাহ্, আল্লাহ্। এরপর ডান কাত হয়ে গেলেন। সব স্তব্ধ হয়ে গেলো। শুধুই শুনশান নিরবতা। চলে গেলেন মহান পরওয়ারদেগারের সান্নিধ্যে।

উনি যে আল্লার রেযামন্দি নিয়ে যাচ্ছেন সেটাই হয়তো আল্লাহ আমাদের মত দূর্বল ঈমান ওয়ালাদেরকে বুঝানোর উদ্দেশ্যে কিছু সময়ের জন্য ওনার জ্ঞান ফিরিয়ে দিয়ে ছিলেন। সবসময় বলতেন এই রাস্তায় যেন ওনার মউত হয়। আল্লাহ্ ক্ববুল করেছেন ওনার ফরিয়াদ।

কারো প্রতি কোন অভিযোগ নয়। আল্লার কাছে ফরিয়াদ, আমাদের এই দুই শহীদ ভাইয়ের উসিলায় আল্লাহ্ যেনো আমাদের দাওয়াত ও তাবলীগের মেহনতকে এবং মেহনত করনেওয়ালাদেরকে সমস্ত ফিৎনা-ফাসাদ থেকে হেফাজত করেন।

কোন গ্রুপিং নয়। নয় কোন হিংসা-বিদ্ধেষ আর মারামারি। আবার যেন ভাই ভাই হয়ে এই মেহনতকে করতে পারি। আল্লাহ্ আপনি সকলকে নেক আর এক হওয়ার তৌফিক দান করুন। আমীন।

Facebook Comment





© All rights reserved © 2020 TabligNewsBD.Com
Design & Developed BY PopularServer.Com